শনিবার, ২৫ জানুয়ারি ২০২০

কথা ছিলো

তানিয়া আক্তার

তোমার সাথে আমার জ্যোৎস্না দেখার কথা ছিলো!
তুমি বলেছিলে,
যদি দিঘীর জলে চাঁদের আলো না দেখা যায়
তবে আমি নাকি সে জলে পা ডোবালেই
কালো সে জলে চাঁদ আলো ছড়াবে।
কিছু লাল পদ্মের বীজ ছিটিয়েছিলে আমাদের ভালোবাসার নামে!
কথা ছিলো,
প্রথম পদ্ম আমায় খোঁপায় গুঁজে দেবার পর
পদ্ম চুঁইয়ে পরা জলের ফোঁটায় আঁচল ভিজিয়ে
তোমার কপালের ভাজে জমে থাকা ক্লান্তি মুছে দিব।

তোমার সাথে আমার অনেকটা পথ হাঁটার কথা ছিলো!
তুমি বলেছিলে,
জীবনের সব বন্ধুর পথে যদি ঘাবড়ে যাই কখনো
আমার নাকি আঙুল ভাজে শক্ত করে তুমি আঙুল ছোঁয়াবে
কিছু ভরসার উর্বর মৃত্তিকায় পথ হবে তখন সমতল।
কিছু বিশ্বাসের বীজ বুনেছিলাম একসাথে!
কথা ছিলো,
দু’জন মিলে নিয়ম করে যত্ন নিব তার
যদি অনিয়মে ভুলে যাই কেউ আর মলিন হয়ে আসে বিশ্বাসের রঙ
তখন অন্যজন একটুকরো হাসিতে সামলে নিব সব।

আমার তোমার হবার কথা ছিলো!
তুমি বলেছিলে,
তুমি দু’হাত আকাশপানে ছড়িয়ে উম্মুক্ত করেছো বুক
আমি যেন ইচ্ছেতেই তোমার হই
ঘর বাঁধি একান্ত আমার সুখে ।
আমরা আঁধার ঘুচিয়ে আলো জ্বালানোর প্রতিজ্ঞা করেছিলাম!
কথা ছিলো,
মধ্যরাতে দুঃস্বপ্নে ভেঙে গেলে ঘুম
নরম হাতে শক্ত করে আগলে নিয়ে
ফের ঘুম নামাবো চোখের পাতায়।

আজ দিঘীর কালো জলে আলোতেও আঁধার নামে
জ্যোৎস্না ভুলেছে পথ
বেদনার নামে নীল পদ্মে ছেঁয়েছে জল।
আমার খোঁপায় আজ অবহেলা খুব
আঁচল গিয়েছে ছিড়ে
আজ তোমার কপালে বিরক্তির ভাজ খেলে।

আমাদের পথ দু’কদমেই হয়েছে শেষ
আমার শূণ্য আঙুল ভাজে
চোখের জলে ভেজা কিছু মৃত্তিকা লেগে আছে আজ।
অবিশ্বাসে মরেছে বিশ্বাসের বীজ
আমরা হাসতে ভুলেছি
অযতনে মনের ভেতর আগাছা ছেয়েছে খুব।

আমি তোমার হতে পারিনি কখনো
তুমি উম্মুক্ত করোনি বুক
আমার অনিচ্ছায় জন্ম নিয়েছে কিছু দুখ।
আমরা আলো জ্বালানো শিখিনি আজও
আজ আমাদের রাত ভোর হয়ে যায়
দুঃস্বপ্ন দেখার ভয়ে।

আমরা এখন এক সুঁতোয় বাঁধা দু’জন অচেনা মানুষ
আমাদের কথারা,প্রতিজ্ঞা আর স্বপ্নগুলো সব
ঘুম ভাঙতেই ভুলে যাওয়া স্বপ্নের নাম।


©  দেশবার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত