শুক্রবার, ২১ জানুয়ারি ২০২২

কোনো কোনো ইউপিতে বিএনপির একাধিক প্রার্থী রয়েছেন

অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের নিশ্চয়তা না থাকায় বর্তমান সরকার ও নির্বাচন কমিশনের অধীনে আর কোনো ভোটে অংশ না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএনপি। কিন্তু স্থানীয় সরকারের নির্বাচন নিয়ে বিশেষ কৌশলের আশ্রয় নিয়েছে দলটি। ভোট বর্জনের ঘোষণা দিলেও মাঠের চিত্র পুরো উল্টো।

ধানের শীষ ছাড়া ভোটের মাঠে ঠিকই সক্রিয় রয়েছেন স্থানীয় নেতাকর্মীরা। প্রথম ধাপের মতো দ্বিতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনেও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসাবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তারা। কেন্দ্র থেকেও এক রকম সবুজ সংকেত রয়েছে। দ্বিতীয় ধাপে সারা দেশে পাঁচ শতাধিক ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে বিএনপির প্রার্থীরা।

কোনো কোনো ইউপিতে বিএনপির একাধিক প্রার্থীও ভোটের মাঠে রয়েছেন। বিশেষ করে যেসব এলাকায় বিএনপির ভোটব্যাংক রয়েছে সেখানে তাদের তৎপরতা বেশি। এছাড়া যেখানে আওয়ামী লীগের শক্ত বিদ্রোহী প্রার্থী রয়েছে সেখানেও জয় ছিনিয়ে আনার ব্যাপারে আশাবাদী বিএনপির প্রার্থীরা।

আগামী ১১ নভেম্বর দ্বিতীয় ধাপের ৮৪৬টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন হচ্ছে। এ ধাপে ৮১ জন চেয়ারম্যান পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। ফলে ৭৬৫ ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।


© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত