বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১

চালের দাম বাড়িয়ে দিয়েছেন মিল মালিকরা

সরকারের সংগ্রহ অভিযানে ঠিকমতো সাড়া না দিয়ে করোনা দুর্যোগের এ সময়ে বাজারে চালের দাম আরও বাড়িয়ে দিয়েছেন মিল মালিকরা। এর প্রভাবে পাইকারি ও খুচরা বাজারে সরু, মাঝারি ও মোটা- সব চালের দাম কেজিতে দুই থেকে চার টাকা বেড়েছে। করোনার মধ্যে এমনিতেই অনেকের আয় কমেছে। এ অবস্থায় প্রধান খাদ্যশস্য চালের দাম বেড়ে যাওয়ায় বেশি চাপে পড়েছেন দরিদ্র ও নিম্ন আয়ের মানুষ।

মিল মালিকরা বলছেন, ধানের দাম বেড়ে যাওয়ায় বাজারে চালের দাম বেড়েছে। তাই খরচ বেশি হওয়ায় সরকারকে চুক্তি অনুযায়ী চাল দেওয়া সম্ভব হয়নি। পাইকারি ও খুচরা ব্যবসায়ীদের অভিযোগ, মিল মালিকদের কারণে চালের দাম বেড়েছে। এখন মিলগুলোতে ধান ও চালের পর্যাপ্ত মজুদ আছে। এবার বোরো ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে।

মৌসুমের সময়ে কম দামে কেনা ধান থেকে তৈরি চাল এখন তারা দাম বাড়িয়ে বিক্রি করছেন। আর এখন ধানের দাম বৃদ্ধির অজুহাত দিচ্ছেন। এদিকে মিলগুলো চুক্তি অনুযায়ী সরকারকে চাল সরবরাহ না করায় মজুদ বাড়াতে আমদানির পরিকল্পনা করছে সরকার। পাশাপাশি সংকটের এ সময়ে খোলাবাজারে চাল বিক্রি অব্যাহত রয়েছে।


©  দেশবার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত