বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯

সরকারি কর্মচারীদের উপস্থিতিতে দেরি হলে বেতন কাটা

সরকারি চাকুরেদের অফিসে নিয়মিত উপস্থিতির বিষয়ে নতুন বিধিমালা প্রণয়ন করছে সরকার। এজন্য জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ‘সরকারি কর্মচারী (নিয়মিত উপস্থিতি) বিধিমালা- ২০১৯’ এর খসড়া প্রণয়ন করেছে। মূলত ‘গণকর্মচারী শৃঙ্খলা (নিয়মিত উপস্থিতি) অধ্যাদেশ, ১৯৮২’ পরিমার্জন করে নতুন এই বিধিমালা করা হচ্ছে। খসড়া বিধিমালাটি সব মন্ত্রণালয় ও বিভাগে পাঠিয়ে মতামত নিচ্ছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

সরকারি কর্মচারীর অফিসে যথাসময়ে উপস্থিতি নিশ্চিতে প্রত্যেক অফিসে নির্ধারিত হাজিরা বইতে স্বাক্ষর গ্রহণের ব্যবস্থা রাখতে হবে। এ হাজিরা বই সংশ্লিষ্ট শাখার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে তার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার কাছে অফিস সময় শুরু হওয়ার ১৫ মিনিটের মধ্যে উপস্থাপন করতে হবে। বিলম্বে উপস্থিত কর্মচারীর নামের পাশে লাল কালি দিয়ে বিলম্ব উপস্থিতি চিহ্নিত করতে হবে। এ ব্যবস্থার পাশাপাশি বা বিকল্প হিসেবে ধীরে ধীরে সব অফিসে ডিজিটাল হাজিরা ব্যবস্থা চালু করা হবে। সেক্ষেত্রে উপস্থিতি নিশ্চিতে অফিসপ্রধান এক বা একাধিক দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নিয়োজিত করতে পারবেন।

এতে আরো বলা হয়েছে, কর্তৃপক্ষের পূর্বানুমতি ছাড়া কোনো সরকারি কর্মচারী ছুটিতে যেতে বা নিজ কর্মে অনুপস্থিত থাকতে পারবেন না।

পাশাপাশি পর পর কয়েকদিন দেরিতে অফিসে আসলে মূল বেতন থেকে নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ কেটে নেওয়ার বিধান উল্লেখ করা হয়েছে।


©  দেশবার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত