মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

সুনামগঞ্জে রেললাইনের বিষয় শীঘ্রই একনেকে : পরিকল্পনামন্ত্রী

গতকাল দুপুর ১ টায় জেলা শিল্পকলা একাডেমির হাসন রাজা মিলনায়তনে সুনামগঞ্জ জেলার নবনির্বাচিত সংসদ সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠান হয়। সংবর্ধিত অতিথির বক্তব্য রাখেন পরিকল্পনা মন্ত্রী এমএ মান্নান, সংসদ সদস্য মুহিবুর রহমান মানিক, মোয়াজ্জেম হোসেন রতন এবং অ্যাড. পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ। অনুষ্ঠান শুরুর পূর্বে সংবর্ধিত অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ করে নেন মুক্তিযোদ্ধারা।

অনুষ্ঠানে পরিকল্পনা মন্ত্রী এমএ মান্নান বলেছেন, ‘অচিরেই সুনামগঞ্জে রেললাইন হবে। ছাতক থেকে সুনামগঞ্জ পর্যন্ত। শীঘ্রই এটি একনেকের বৈঠকে উঠবে। সুনামগঞ্জ পৌর কলেজের নির্মাণ কাজ চলছে, কেন্দ্রীয় ঈদগাহ্ মাঠ সংস্কার কাজ হবে, ইসলামগঞ্জ কলেজের উন্নয়ন হচ্ছে। নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মাসেতুর কাজ চলছে। ২য় পদ্মা সেতুও হবে। এখন আমরা ৩য় পদ্মাসেতু নিয়ে চিন্তা করছি। চট্টগ্রামে টানেল নির্মাণ হচ্ছে। উন্নয়নের ছোঁয়ায় আমরা সব কিছু বদলে দেবো।’

তিনি বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধারা জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান। মুক্তিযোদ্ধারা একটি পরাধীন জাতিকে স্বাধীনতা এনে দিয়েছেন। এজন্য অনেক আত্মত্যাগ করতে হয়েছে। মুক্তিযোদ্ধারা যে সম্মান অর্জন করেছেন, তা আর কারো অর্জন করার সুযোগ নেই। আপনাদের এখানে উপস্থিত হতে পেরে আমি আনন্দ বোধ করছি।’
তিনি বলেন, ‘আমাদের অনেক দায়িত্বের মধ্যে অন্যতম দায়িত্ব হলো আপনাদের কথা সংসদে তুলে ধরা। আমাদের নেত্রী সর্বক্ষণ চিন্তা করেন আপনাদের বিষয়ে, আপনাদের সুযোগ সুবিধা নিয়ে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নের চেষ্টা করছেন।’

মন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের নেত্রী বাঙালি জাতির অর্থনৈতিক মুক্তির জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করছেন। যে জাতি হবে বিজ্ঞানমনষ্ক। সেই কর্মযজ্ঞে শামিল হওয়ায় সুযোগ নেত্রী আমাকে দিয়েছেন। আমরা অবশ্যই সফল হবো।’

তিনি বলেন, ‘ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সকলের সুষম উন্নয়ন চান। তিনি চান সাঁকো বিহীন বাংলাদেশ। সকলের ঘরে বিদু্যৃতের আলো জ্বলবে, নতুন বছরের শুরুতে সকল শিক্ষার্থী নতুন বই পাবে, দেশের জনগণের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত হবে। আমিও তাই চাই।’


© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত