সোমবার, ০১ জুন ২০২০

সেই রাস্তার গল্প || সুমনদীপ পান্ডে

তখন ইস্কুলে পড়ি। ক্লাস ফাইভ কি সিক্স । মনের সাথে হরমোনের লড়াই তখনো শুরু হয়নি । সে বয়সটা ছিল সবকিছুকেই ভালো লাগার । গাছ, ফুল,পাখি, বৃষ্টি, রোদ, পোকামাকড় সব কিছুই তখন সে বয়সের চোখে বড়ো বেশিই সুন্দর লাগত । মন খারাপগুলোর স্থায়িত্ব ছিল কম ।

রিকশায় চেপে স্কুল যাওয়ার সময় মেয়েটির সাথে রোজ দেখা হতো । ঘাড় পর্যন্ত চুল, গুবলু গাবলু চেহারা। ঠিক যেন একটা বড়সড় ডল পুতুল । রোজ দশটা থেকে সাড়ে দশটার সময় পাড়ার রাস্তা দিয়ে দাদুর হাত ধরে স্কুলে যেত । কথা হয়নি কোনদিনই, শুধু যেতে আসতে মুখোমুখি পড়ে গেলে একবার মুচকি হাসি । ব্যাস এটুকুই । এর চেয়ে বেশি আর কি চাই ।

স্কুল জীবন শেষ হয়েছে বহুদিন হলো । সেই ডল পুতুলের  কোনো খবর জানি না । তবু আজও কাজ আর ব্যস্ততা ভরা গুমোট ঘরের জানলা দিয়ে হঠাৎ কখনো আনমনে সেই রাস্তার দিকে চোখ পড়ে গেলে এক ঝলক ঠাণ্ডা বাতাসের মতো স্মৃতির ঝাপটা এসে লাগে । চোখের সামনে ছায়াছবির মতন দেখতে পাই, মোটা কালো চশমা পরা এক দাদুর হাত ধরে আমার  ডল পুতুল হেঁটে যাচ্ছে ।  এত শুধু স্মৃতি নয়, যেন ওয়ার্ডসওয়ার্থের “ড্যাফোডিলস” । আমার “bliss of solitude”


©  দেশবার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত