সোমবার, ১৫ আগস্ট ২০২২

হাসান হামিদ-এর কবিতা : খুনী হবার পর

তোমাকে শেষ সন্ধ্যায় খুন করার পর
আমার কিছুই আর আগের মতোন নেই।
মায়া না খেলার তেইশটি বছর কষ্ট প্রকাশের তীব্র ঘ্রাণে
যে সকল সান্নিধ্য বুকের ভিতর লুকিয়ে রেখেছিলাম,
তারাই দল বেধে তোমার আরন্যক প্রলোভনে
কুন্ঠিত শামিয়ানা উড়িয়েছে এবং
অন্তর্গত সকল অসুখ হাঁটছে নন্দিত সুখের হাত ধরে।

যে আমি আগে রোদ বৃষ্টির তফাৎ জানতাম না,
বুঝতাম না মধ্যরাতের ব্যাকুলতা;
তোমাকে খুন করার পর- সেই আমিই জোছনা দিয়ে
ভিজাতে শিখেছি রাতের শরীর;
একা একা ভেসে যাওয়া ছিন্নপাল কবি ছিলাম,
আজ তোমার খুনী হয়ে সকাল সন্ধ্যার
সব কাজ নিয়ম মাফিক সেরে ফেলি;
পকেটে রাখি এখন সবটা প্রজাপতি রোদ।
দুপুরের হঠাৎ হাওয়ায় যেমন নেচে উঠে বরই পাতা,
খুনের ছোঁয়ায় তেমন হয়ে অবশেষে আমি
ঝিরঝিরে ইচ্ছের ডগায় অযতনে বেড়ে উঠা নদী।
যার ঘুমকাতুর চোখে অগনিত অশ্রুর ছিমছাম বসবাস ছিল;
সেই আমার দু’চোখেই নদীর নাচন এখন;
তোমাকে খুন করে ফেলার পর
মানানসই নিয়তির মেধায় খুলে গেছে পৃথিবীর পেখম,
পরিত্যক্ত বস্তিঘর এক পশলা বৃষ্টির পর
শীতলতায় যেমন পরিপূর্ণ হয়,
তোমার খুনী হবার পর জীবন হয়েছে তেমন।


© 2022 - Deshbarta Magazine. All Rights Reserved.