রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০

সাহিত্য

এলোমেলো || মুহাম্মদ আব্দুল বারেক

এই গভীর রা‌তে শি‌শি‌রের রোমশ জল- ঢে‌কে রা‌খে, উম দেয় নোনতা চো‌খের ভেজা হীম‌কে। কুয়াশার চাদ‌রের কো‌নায় মুখ মু‌ছে ভেজা গা‌লের উদাসীনতা, কষ্ট‌বোধ! এই সব খুব ভালই দে‌খে তোমার চর্ম‌চোখ,

বিস্তারিত...

মৃণাল সেন অথবা রেবার জন্য || তামান্না সেতু

১. সাল ১৯৮৯। ২৮ বছর আগের কথা লিখছি। খেলতে গিয়েছিলাম মাঠে। দুপুরে ভাত খাবার পর থেকে মাগরিবের আজান না পড়া অব্দি খেলাই নিয়ম। সেদিন সাড়ে চারটা না বাজতেই মা মাঠ

বিস্তারিত...

পার্শ্ব চরিত্র || বর্ণালী ঘোষ

এমন একটা মানুষ থাকুক জীবনে যাকে দ্বিধাহীন বলা যায় মন খারাপের কারণ; যার কাছে ভালো থাকার মিথ্যে অভিনয় করতে না হয়। সত্যি ভালোবাসে সেই যে কেবল পাশের মানুষটাকে ভালো রাখা

বিস্তারিত...

অবস্থান || শিমুল মুস্তাফা

তুমি আজ আসবে বলে- বহুক্ষণ আমি অবাক হয়েছি! ঘরের চৌদিকের দেয়ালের ঝুলগুলো পরিষ্কার করেছি আমার ঘরটাকে আমি নিজেই আপন করে সাজিয়েছি, সেই সারা রাত ধরে! এটা কদম ফুলের মাস আমি

বিস্তারিত...

তুমি, হে সুন্দর || নির্মলেন্দু গুণ

তুমি সুন্দর একটু কমাও তো! তাকে একটু থামতে বল, প্লিজ। আমি তো তোমার মুখের দিকে একেবারে তাকাতেই পারছি না। বোরখা না-ই পরতে চাও যদি, ওড়না দিয়ে ঢাকো চোখ-মুখ। কালো ওড়না

বিস্তারিত...

ফিরবো বললেই কি আর ফেরা যায় || মেহেদী হাসান

ফিরবো বললে কি ফিরে যাওয়া যায়! যদি সত্যি ফেরা যেত- ফিরে যেতাম শৈশবে শিউলি রাঙা কুয়াশা ভোরে মায়ের বুকের ওমে দেখে আসতাম – একটি লাল গঙ্গা ফড়িংয়ের পিছনে কিংবা একটি

বিস্তারিত...

ফেরা || ইসমত শিল্পী

তুমিই তো আনো টেনে সপ্তমোহে পুরোনো পাথর কেটে ঘরহীন ঘরে। অদৃশ্যে আঁচল নেড়ে মোছো ঘাস কুয়াশা বিধুর রোদে স্বরহীন সুরে। তুমি নাকি আমি ? খুব বেশি ঋণী বিনয় বেলায় মন

বিস্তারিত...

গুচ্ছ কবিতা || রোকেস লেইস

(এক) কোনো এক সু-নয়না অবারিত বিস্ফারিত দৃষ্টি অজান্তে অলক্ষ্যে ঘটায় অনাসৃষ্টি; অগোচরে পুড়ায় সহস্র অন্তর আহা, সু-নয়না রাখে না খবর।   (দুই) অপলক দৃষ্টিতে অনন্য সরলতা মোহময় মনোময় স্নিগ্ধ পেলবতা

বিস্তারিত...

উষ্ণকীর্তন || নুসরাত নুসিন

গভীর ঝড়ের মতো কখনো বেজে যাওয়া ভাল। এখন নিঃশ্চুপ অনাদিকাল। এখন জ্যোতি ফিরে আসছে তার চোখের কাছে। মন ফিরেছে মনের কাছে। এখন ঠিক রাত্রির জঙ্গল—তার ইষৎ আভাসিত কাল। * এমন

বিস্তারিত...

লীলাসূত্র || মুজিব ইরম

শব্দ বড়ো যাদু জানে যাদু জানে গো! দিবস-রজনী আমি ফানা হয়ে থাকি। আসবে বলে আমার কুঞ্জে কান্না ফেরি করি। নৌকাবিলাসে হঠাৎ মত্ত হয়ে দেখি, বিরহে কেটেছে দিন শব্দ শব্দ জপি!

বিস্তারিত...

©  দেশবার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত